তাইওয়ান ছাড়লেন ন্যান্সি পেলোসি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভসের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসিকে বহনকারী ফ্লাইটটি সোনশান বিমানবন্দর ছেড়েছে। তাইওয়ানে ২৪ ঘণ্টারও কম সময়ের মধ্যে সফর শেষ করেছেন পেলোসি। বুধবার (৩ আগস্ট) বিবিসির প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বেইজিংয়ের কঠোর সতর্কতা সত্ত্বেও মঙ্গলবার (২ আগস্ট) পৌঁছেছিলেন পেলোসি। তাইপেইতে তার সংক্ষিপ্ত সফর শেষ করার আগে স্থানীয় সংসদে ভাষণ দেন এবং তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েনের সাথে একটি বৈঠক করেন। তাইওয়ানের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে বৈঠকে তিনি ওয়াশিংটনের সব ধরনের সহযোগিতা অব্যাহত রাখারও কথা জানান।

তিনি আরও বলেন, আমাদের প্রতিনিধি দল তাইওয়ানে এসেছে এটা দ্ব্যর্থহীনভাবে স্পষ্ট করে দিতে যে আমরা তাইওয়ানের প্রতি আমাদের প্রতিশ্রুতি ভঙ্গ করবো না। একই সঙ্গে আমরা আমাদের স্থায়ী বন্ধুত্বের জন্য গর্বিত।

টুইটারে পোস্ট করা এক বিবৃতিতে দ্বীপরাষ্ট্র তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলেছে, মঙ্গলবার ২১টি পিএলএ বিমান তাইওয়ানের দক্ষিণ-পশ্চিম আকাশ প্রতিরক্ষা শনাক্তকরণ এলাকায় ঢুকে পড়ে।

চীনা হুমকির প্রতিক্রিয়ার পর তাইওয়ানের পূর্ব সীমান্তে চারটি যুদ্ধজাহাজ মোতায়েন করেছে হোয়াইট হাউস। পেলোসির নিরাপত্তার অজুহাতে দক্ষিণ চীন সাগরের দ্বীপরাষ্ট্রে আমেরিকার যুদ্ধবিমানের বহরও ঢুকে পড়েছে।

পেলোসির তাইওয়ান সফর কূটনৈতিক এবং সামরিক দিয়ে ‘তাৎপর্যপূর্ণ’ হবে বলেও মনে করা হচ্ছে। ১৯৯৭ সালের পর থেকে এই প্রথম যুক্তরাষ্ট্রের কোনো শীর্যস্থানীয় রাজনৈতিক নেতা তাইওয়ান সফরে গেলেন।

আন্তর্জাতিক এর সাম্প্রতিক